গোয়াইনঘাটে বিশ্ব ‘মা, দিবস পালিত

Spread the love

গোয়াইনঘাট প্রতিনিধি:: পৃথিবীর মধুরতম ডাক মা। ছোট্ট এ শব্দের অতলে লুকানো থাকে গভীর স্নেহ, মমতা আর পৃথিবীর সবচেয়ে অকৃত্রিম ভালোবাসা। শৈশব থেকে আনন্দ-বেদনা-ভয় কিংবা উদ্দীপনা প্রতিটি মানবিক অনুভূতিতে জড়িয়ে থাকে মায়ের নাম। জন্ম থেকে মৃত্যু পর্যন্ত মানুষের সবশেষ আশ্রয়স্থল মা নামের ওই মমতাময়ী নারীর আঁচল। প্রতি বছর মে মাসের দ্বিতীয় রোববার বিশ্বব্যাপী বিশেষ মর্যাদায় পালিত হয় বিশ্ব মা দিবস। আসলে মাকে ভালোবাসা ও শ্রদ্ধা জানাতে কোনো দিনক্ষণের প্রয়োজন হয় না। প্রতিটি মায়েরই সন্তানের ভালোবাসা প্রাপ্য প্রতিদিনই। তবুও নয় মাস দশ দিন গর্ভে ধারণ করে যে মা সন্তানকে পৃথিবীর আলো দেখান, নিজের সব স্বাদ-আহ্লাদ সন্তানের নামে করে দেন যে মা, তার সম্মানে আলাদা করে একটু ভালোবাসা জানাতেই এই দিনটি পালন করা হয়।পৃথিবীর সকল যুগের সকল ধর্মে মার সম্মান রাখা হয়েছে সবচেয়ে উঁচুতে। পবিত্র কোরআনে আল্লাহ বলেন, ‘আমি মানুষকে তার মা-বাবার সঙ্গে সদাচরণের নির্দেশ দিয়েছি। তার মা কষ্টের পর কষ্ট ভোগ করে তাকে গর্ভধারণ করে। তার দুধ ছাড়ানো হয় দুই বছরে। সুতরাং আমার শোকরিয়া ও তোমার মা-বাবার শোকরিয়া আদায় করো।’ (সুরা লোকমান, আয়াত: ১৪)। এরই ধারাবাহিকতায় গোয়াইনঘাটে বিশ্ব মা দিবস পালিত হয়েছে। আলোচনা সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে গোয়াইনঘাট উপজেলা নির্বাহী অফিসার মো: তৌহিদুল ইসলাম উপরোক্ত কথাগুলো বলেছেন।রবিবার ১২মে বিকেল সাড়ে ৫ টায় গোয়াইনঘাট উপজেলা প্রশাসন’র কন্ফারেন্স হলে উপজেলা প্রশাসন ও মহিলা বিষয়ক কর্মকর্তার কার্যালয়’র উদ্যোগে আয়োজিত বিশ্ব মা দিবসের আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয়। মহিলা বিষয়ক কর্মকর্তা শিবলী  আতিকা তিন্নীর সভাপতিত্বে ও সঞ্চালনায় এসময় উপস্থিত থেকে বিশেষ অতির বক্তব্য রাখেন গোয়াইনঘাট সরকারি কলেজের অধ্যক্ষ ফজলুল হক। সভায় উপজেলার বিভিন্ন বিভাগীয় কর্মকর্তা  কর্মচারী, নারী সংগঠনের নেতৃবৃন্দ, কিশো কিশোরী ক্লাবের শিক্ষক শিক্ষার্থী, মহিলা প্রশিক্ষন কেন্দ্রের প্রশিক্ষনার্থীরা এসময় উপস্থিত ছিলেন। আলোচনা সভা শেষে অতিথিরাবৃন্দরা ক্ষদ্র ঋণ ও বৃক্ষ চারা প্রদান করেন।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *