জৈন্তাপুরে সড়ক দূর্ঘটনায় ৪ ছাত্রলীগ নেতা নিহত ৩ জনের জানাযা ও ১জনের অন্তষ্টক্রিয়া সম্পন্ন

Spread the love

জৈন্তাপুর প্রতিনিধি:: সিলেট তামাবিল মহাসড়কের বাংলা বাজার সংলগ্ন ২নং লক্ষীপুর নামক স্থানে একটি প্রাইভেট কার নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে পার্শ্ববর্তী খাদের পানিতে পড়ে জৈন্তাপুর উপজেলা সদরের বিভিন্ন মহল্লার বাসিন্দা উপজেলা ছাত্রলীগের ৪ জন কর্মী নিহত হয়েছেন। দুঘর্টনার শিকার চার তরুনের মৃত্যুতে তাদের পরিবার সহ জৈন্তাপুর উপজেলায় শোকের ছায়া নেমে এসেছে। এই মর্মান্তিক সড়ক দুর্ঘটনায় নিহতরা হলেন জৈন্তাপুর উপজেলা সদরের নিজপাট ইউপি’র তোয়াসি হাটির বনদিপ পালের ছেলে ছাত্রলীগ নেতা নেহাল পাল (২৫), কমলা বাড়ির জামাল আহমদের ছেলে জুবায়ের আহসান (২৪) ,বড় পুকুরপাড় পানিয়ারা হাটির আরজু মিয়ার ছেলে মেহেদী হাসান তমাল (২২) ও জাঙ্গাল হাটির হারুন রশিদের ছেলে আলী হোসেন সুমন (২৩) মৃত্যুবরণ করেছেন।১৯ জানুয়ারি শুক্রবার রাত ১২ টার দিকে এই মর্মান্তিক সড়ক দুঘর্টনা ঘটে । শনিবার দুপুর ২টায় জৈন্তাপুর রাজবাড়ি মাঠে নিহত ৩ জনের এক সাথে জানাজার নামাজ অনুষ্ঠিত হয়। অপর দিকে নিহত নেহাল পালের ধর্মীয় রীতি অনুযায়ী বিকালে উপজেলা সদরে অন্তষ্টত্রিæয়া সম্পন্ন হয়। জানাগেছে, শুক্রবার রাত সাড়ে ১১টায় চার বন্ধু প্রাইভেট কার নিয়ে তামাবিল যাওয়ার পথে উপজেলা সদর থেকে মাত্র ২ কিলোমিটার দুরে বাংলা বাজার এলাকার ২নং লক্ষীপুর নামক স্থানে যাওয়ার পর নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে পার্শ্ববর্তী খাদের পানিতে পড়ে দুঘর্টনার শিকার হন। ঘটনার খবর পেয়ে জৈন্তাপুর থানা পুলিশ ,হাইওয়ে পুলিশ এবং ফায়ার সার্ভিস সহ স্থানীয় জনতা তাদের-কে উদ্বার করেন। রাত সাড়ে ১২টার দিকে ঘটনাস্থল থেকে হাসপাতালে নিয়ে আসার পর কর্তব্যরত চিকিৎক তাদেরকে মৃত ঘোষনা করেন। এই দুঘর্টনা ও তরুন ৪জন ছাত্রলীগ কর্মীর মৃত্যুর সংবাদ পেয়ে জৈন্তাপুর স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স এ কয়েক শত ছাত্র-জনতা জড়ো হন। নিহতের স্বজন সহ বন্ধু-বান্ধব হাসপাতালের জরুরী এম্বুলেন্স সার্ভিস ও চিকিৎসা সেবায় ডাক্তারের দায়িত্বহীনতার অভিযোগ করে উপস্থিত ছাত্র-জনতার মধ্যে উত্তোজনা দেখা দেয়। এসময় তারা ইটপাটকেল নিক্ষেপ করে ও দুটি গাড়িতে অগ্নীসংযোগ করে। ভাংচুর ও হামলার ঘটনার খবর পেয়ে জৈন্তাপুর উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান কামাল আহমদ, উপজেলা নিবার্হী অফিসার মো: সাজেদুল ইসলাম, সহকারি পুলিশ সুপার কানাইঘাট (সার্কেল) অলক কান্তি শর্মা, জৈন্তাপুর মডেল থানার অফিসার ইনচার্জ মো: তাজুল ইসলাম ( পিপিএম ),। হাসপাতালে ভাংচুরে ব্যাপক ক্ষয়ক্ষতি সাধিত হয়েছে বলে উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা ডা: মো: সালাহ উদ্দিন মিয়া জানিয়েছেন। জৈন্তাপুর রাজবাড়ী মাঠে অনুষ্ঠিত জানাযার নামাজে উপস্থিত ছিলেন সিলেট- আসনের সংসদ সদস্য ইমরান আহমদ, জেলা আওয়ামীলীগের সাংগঠনিক সম্পাদক এডভোকেট মাহফুজুর রহমান, উপজেলা চেয়ারম্যান কামাল আহমদ, উপজেলা নির্বাহী অফিসার সাজেদুল ইসলাম, জৈন্তাপুর মডেল থানার অফিসার ইনচার্জ তাজুল ইসলাম, সাবেক উপজেলা চেয়ারম্যান জয়নাল আবেদীন, উপজেলা আওয়ামীলীগের সাধারণ সম্পাদক লিয়াকত আলী, জেলা ছাত্রলীগের সভাপতি নাজমুল ইসলাম, ইউপি চেয়ারম্যান ইন্তাজ আলী, ফখরুল ইসলাম, বাহারুল আলম বাহার, রফিক আহমদ, কামরুজ্জামান চৌধুরী প্রমুখ।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *